শিরোনাম

পিউ ম্রংকে এমপি মনোনয়নের দাবি

প্রিন্ট সংস্করণ॥হাফিজুর রহমান. মধুপুর (টাঙ্গাইল)  |  ১২:০৩, জানুয়ারি ১১, ২০১৯

পিউ ফিলোমিনা ম্রংকে সংরক্ষিত আসনে মনোনয়নের দাবি জানিয়েছেন মধুপুর গড়াঞ্চলের সমতল এলাকায় বসবাসকারি নৃ-তাত্তি¡ক জনগোষ্ঠি, গারো ও কোচ সম্প্রদায়ের লোকেরা। নৃ-গোষ্ঠিদের দাবি গারো সম্প্রদায়ের লোকেরা অবহেলিত জনগোষ্ঠি। তাদের কথা বলার মতো নিজস্ব কোন নারী প্র্রতিনিধি জাতীয় সংসদে না থাকায় তারা বরাবরই অবহেলিত। তাদের প্র্রতিনিধিত্ব করার জন্য মধুপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক ও মধুপুর উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মিসেস পিউ ফিলোমিনা ম্রং কে জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনে মনোনয়নের দাবি জানিয়েছেন মধুপুর অঞ্চলের গারো ও কোচ সম্প্রদায়। পিউ ফিলোমিনা ম্রং ১৯৯৬ সাল থেকে মধুপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে এবং মধুপুর উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব প্রালন করে আসছে। তিনি এর আগেও ৩ বার সংরক্ষিত আসনে মনোনয়ন ফরম তুললেও তাকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি। তিনি এমএসসি প্রাশ করে বর্তমানে মধুপুর জলছত্র কর্পোস খ্রিষ্টি উচ্চ বিদ্যালয়ে সিনিয়র বিএসসি শিক্ষক হিসেবে শিক্ষকতা করছেন। আওয়ামী লীগের রাজপথের মিছিল মিটিংয়ে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহন করে থাকেন। দলের বিভিন্ন কর্মকান্ডে তিনি অত্যন্ত নির্ভিক সাহসী ভূমিকা প্রালন করে যাচ্ছেন। বৃহত্তর ময়মনসিংহ আদিবাসী কালচারাল ডেভেলপমেন্ট এর সভাপতি মি. অজয় এ মৃ বলেন, নৃ-গোষ্ঠির নারীরা এমনিতেই পিছিয়ে প্রড়া জনগোষ্ঠি। জাতীয় সংসদে আমাদের নৃ-গোষ্ঠি নারীদের নিজস্ব প্র্রতিনিধি নেই। আমাদের একজন নারী প্র্রতিনিধি প্র্রয়োজন। জয়েনশাহী আদিবাসী উন্নয়ন প্ররিষদের সভাপতি ইউজিন নকরেক জানান, আমদের পিছিয়ে প্রড়া সংখ্যালঘু নৃ-তাত্ত্বিক জনগোষ্ঠি নারীদের প্রতিনিধিত্ব করার জন্য জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত আসনে মনোনয়ন দেওয়ার দাবি জানাই। সংরক্ষিত আসনে মনোনয়ন পেলে এই পিছিয়েপড়া জনগোষ্ঠি নারীদের এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ হবে।
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত