শিরোনাম

সারাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১৪

আমার সংবাদ ডেস্ক  |  ১৮:২৯, জুন ২১, ২০১৮

সারাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় ১৪ জন নিহত হয়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে।নিহতদের মধ্যে খুলনা জেলার ডুমুরিয়ায় ৫জন ও একই জেলার কয়রা উপজেলায় একজন। এছাড়া ভোলায় ২, কিশোরগঞ্জ ২, ঢাকা, জামালপুর, চুয়াডাঙ্গা ও ফেনীতে একজন করে নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার (২১জুন) সকাল থেকে সন্ধা সাড়ে ছয়টার পর্যন্ত এসব দুর্ঘটনা ঘটে।প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর:

খুলনা: খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার বরাতিয়া এলাকায় যাত্রীবাহী একটি বাস খাদে পড়ে ৫ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও ২০ জন। বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে ১টার দিকে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে দুইজনের নাম জানা গেছে। তারা হলেন- কয়রা উপজেলার উত্তর খেওনা এলাকার শরিফুল ইসলাম ও মোস্তফা গাজী। অন্যদের পরিচয় জানার চেষ্টা চলছে। দুর্ঘটনায় নিহত ৫ যাত্রী সকলেই বাসের ছাদে ছিলেন। ডুমুরিয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.হাবিল হোসেন জানান, দুপুর পৌনে ১টার দিকে খুলনা থেকে ডুমুরিয়াগামী একটি বাসকে ওভারটেক করতে গিয়ে কয়রা থেকে ছেড়ে আসা সাতক্ষীরাগামী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে যায়। এতে এই হতাহতের ঘটনা ঘটে। পরে খবর পেয়ে ডুমুরিয়া ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান। আহতদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি। নিহতরা খুলনায় দিনমজুরের কাজ করার জন্য আসছিলেন বলে আহতরা জানিয়েছেন। এছাড়া একই জেলার কয়রা উপজেলায় টিপু শিকদার (৪৭) নামে মোটরসাইকেলের এক আরোহী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন সঞ্জিব বড়ালের স্ত্রী নিলীমা রানী (২৫) ও তার ছেলে (৭)। বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলার কয়রা উপজেলার মহারাজপুর ইউনিয়নের কালনা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত টিপু ও আহতরা উপজেলার কাশিয়াবাদ এলাকায় বেড়াতে এসেছিলেন। স্থানীয়রা জানান, কালনা গ্রামের প্রধান সড়কের পাশের একটি গাছ এলাকার আনার গাইনের ছেলে ফারাজুল গাইন কাটার সময় টিপু ও আহত ব্যক্তিরা মোটরসাইকেলে করে ওইস্থান অতিক্রম করছিলেন। এসময় হঠাৎ কাটা গাছটি চলন্ত মোটরসাইকেলের উপর পড়ে। এতে চালকসহ যাত্রীরা গুরুতর আহত হন। এ অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে টিপু মারা যান। আহত দু’জনকে কয়রা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

কিশোরগঞ্জ : পাকুন্দিয়া ও করিমগঞ্জে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় দুইজন নিহত হয়েছেন। এ সময় অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন। পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার সকালে পাকুন্দিয়া উপজেলা সদরে কিশোরগঞ্জগামী অনন্যা পরিবহনের একটি বাসের সঙ্গে পিকআপের সংঘর্ষে জরিনা বেগম নামে এক বাসযাত্রী নিহত ও ১৯ জন আহত হয়। আহতদের কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালসহ বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।এদিকে, সকাল ১০টার দিকে করিমগঞ্জ উপজেলার দেহুন্দা ফেরিঘাট এলাকায় ঢাকাগামী ক্যান্টনমেন্ট পরিবহনের একটি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পুকুরে পড়ে যায়। এ সময় হেলাল মিয়া নামে এক ব্যক্তি নিহত ও অন্তত ১১ জন আহত হয়। আহতদের করিমগঞ্জ উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ভোলা : চরফ্যাশনে ট্রলি-অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে শিশুসহ অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় ভোলা-চরফ্যাশন আঞ্চলিক মহাসড়কের হ্যালিপ্যাড সংলগ্ন এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- উপজেলার আলীগাও গ্রামের সায়েম (১২) ও আসলামপুর এলাকার মনসুর (৪৫)। এ ঘটনা আহত হয়েছে অপর এক নারী।
চরফ্যাশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক জানান, সকালে একটি অটোরিকশা লালমোহন থেকে চরফ্যাশনের দিকে আসছিলো। অটোরিকশাটি চরফ্যাশনের হেলিপ্যাড সড়কে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা অপর একটি ট্রলি সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশা যাত্রী মনসুর ও সাময়ে নিহত হয়।

ফেনী : ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় ডা. মজিবুল হক (৫৫) নামে এক পল্লী চিকিৎসক নিহত হয়েছেন।বৃহস্পতিবার দুপুরে ফেনী-মাইজদী মহাসড়কের সিলোনীয়া পাম্পের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। পুলিশ জানায়, দুপুরে সিলোনীয়া বাজারস্থ আরজু ক্লিনিকের মালিক ডা. মজিবুল হক মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিলেন। পথের মধ্যে তাকে বহনকারী মোটরসাইকেল ফেনী-মাইজদী মহাসড়কের সিলোনীয়া পাম্পের সামনে পৌঁছলে যাত্রীবাহী একটি বাসের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এতে ঘটনাস্থলে তার মৃত্যু হয়। নিহত ডা.মজিবুল হক জায়লস্কর ইউনিয়নের জয়নারায়নপুর গ্রামের মৌলভী বাড়ীর বাসিন্দা। দাগনভূঞা থানার পরিদর্শক (ওসি) আবুল কালাম আজাদ নিহতের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পুলিশ বাসটিতে জব্দ করেছে।

ঢাকা: রাজধানীর রায়েরবাগে রাস্তা পারাপারের সময় পিকআপভ্যানের ধাক্কায় মানিক (২২) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার ভোরে রায়েরবাগ ফুটওভার ব্রিজের নিচে এ দুর্ঘটনা ঘটে। যাত্রাবাড়ী থানা পুলিশের বরাত দিয়ে ঢামেক ক্যাম্প পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া জানান জানান, আজ ভোর ৬টার দিকে রায়েরবাগে রাস্তা পার হওয়ার সময় পেছন দিক থেকে একটি পিকআপভ্যান ওই যুবককে ধাক্কা দেয়। এতে তিনি গুরুত্বর আহত হন। পরে তাকে উদ্ধার করে ঢামেক হাসপাতালে আনা হলে সকাল ৭টার দিকে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত মানিক কদমতলী এলাকার বাসিন্দা। বাবার নাম আব্বাস আলী। তিনি বাসের হেলপার হিসেবে কাজ করতেন।নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন এসআই বাচ্চু মিয়া। তবে এ ঘটনায় এখনও কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি বলে জানান তিনি।

চুয়াডাঙ্গা: আলমডাঙ্গা উপজেলায় অবৈধ ভটভটির (আলমসাধু) ধাক্কায় একজন সাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার নাগদাহ ইউনিয়নের জোড়গাছায় ওই দুর্ঘটনা ঘটে।নিহত ব্যক্তির নাম রফিকুজ্জামান ওরফে টুটুল (৬০)। বাড়ি উপজেলার বারাদী ইউনিয়নের আঠারোখাদা গ্রামে।পুলিশ ও নিহত ব্যক্তিদের স্বজনেরা জানান, আজ সকালে রফিকুজ্জামান সাইকেল নিয়ে ব্যক্তিগত প্রয়োজনে জোড়গাছা গ্রামে যান। গ্রামের হাজিপাড়ায় পৌঁছলে দ্রুতগামী একটি ভটভটি পেছন থেকে তাকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে আহত হন তিনি। আশপাশের লোকজন মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে দুপুর ১২টায় জরুরি বিভাগের চিকিৎসক শিরিন জেবীন তাকে মৃত ঘোষণা করেন। আলমডাঙ্গা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) লুৎফুল কবীর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জামালপুর: মেলান্দহ উপজেলায় ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে আকবর আলী (৭০) নামে এক বৃদ্ধা নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে উপজেলার ঢাকা-দেওয়ানগঞ্জ সড়কের শ্যামপুর বাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘরে। নিহত আকবর মেঘারবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা। মেলান্দহ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিজুর রহমান বলেন, মেলান্দহ শ্যামপুর বাজারে আকবর আলী রাস্তা পার হওয়ার সময় জামালপুর থেকে দেওয়ানগঞ্জগামী একটি ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ট্রাকটি জব্দ করলেও তার চালক পালিয়ে যায় বলেও জানান পুলিশের এ কর্মকর্তা।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত