শিরোনাম

একটানা বসে কাজ করার ভুলগুলো

০৪:০৭, জুন ১৯, ২০১৭

একটানা অনেক্ষণ বসে থাকলে হতে পারে হাড়ে ব্যথা জমাট বাঁধতে পারে রক্ত। তাছাড়া একটানা চার-পাঁচ ঘণ্টা কোন কাজ না করে বসে থাকলেও স্থূলতার ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়।

স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যে, দীর্ঘক্ষণ একটানা বসে থাকলে শরীরে চর্বি জমে, হাড় ও শরীরের সংযোগস্থলে নানারকম জটিলতা দেখা দেয়। এছাড়াও হৃদরোগ ও রক্তনালীতে রক্ত জমাট বাঁধার জটিলতা দেখা দিতে পারে।

চোখ বরাবর মনিটর: অফিসে কাজ করার সময় কম্পিউটারের মনিটর এমন ভাবে রাখুন যেন তা আপনার চোখ বরাবর হয়। কাজ করার সময় মনিটর যদি খুব বেশি উঁচু বা নিচু থাকে তাহলে তা ঘাড় ও কাঁধে ব্যথা এবং হাড়ের জোড়ে সমস্যা হতে পারে।

কাঁধ শিথিল রাখা: কাজ করার সময় কাঁধ যেন আরামে থাকে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। কাজ করার সময় কাঁধ বাঁকা না করে এবং বাহু ৯০ ডিগ্রি ভাবে সোজা রাখতে হবে। এতে কাঁধ ও ঘাড়ের ব্যথা এড়ানো সম্ভব।

পিঠে ঠেস দেওয়া: পিঠের মাঝামাঝি অংশে কোনো কিছু দিয়ে ঠেস দিন। এতে পিঠ নিরাপদে থাকবে এবং পিঠ বাঁকাবে কম। ফলে পিঠ বা মেরুদণ্ডে ব্যথা হবে না। তাই চেয়ারে বসার পর পিঠ ও চেয়ারের মধ্যবর্তী অংশে বালিশ বা অন্য কিছু দিয়ে ঠেস দিয়ে নিন।

পা ভাঁজ না করা: বসে কাজ করার সময় হাতের মতো পা ৯০ ডিগ্রি ভাঁজ করে রাখুন। তা না হলে পায়ের সংযোগস্থল বা কোমড়ে চাপ পড়ে এবং রক্ত চলাচল বাঁধা পায়।

চেয়ারে বসে ব্যায়াম করা: প্রতি আধ ঘণ্টা পর পর গলা ঘুরিয়ে এবং সম্ভব হলে নিজ সিট থেকে উঠে হাঁটাচলা করুন। এছাড়াও হাত মাথার উপরে এবং পাশে ঘুরিয়েও ব্যায়াম করা যায়।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত