‘সরকারের ধারাবাহিকতায় দরিদ্র মধ্যবিত্তের উপকার হয়’

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক  |  ২৩:৩৮, জুন ১৫, ২০১৯

সরকারের ধারাবাহিকতা থাকলে সব কিছু ভালো হয়। এর ফলে দরিদ্র-মধ্যবিত্তের উপকার হয় বলে মন্তব্য করেছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।গতকাল রাজধানীর ডেইলি স্টার ভবনে বাজেট পরবর্তী এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

এম এ মান্নান বলেন, আমরা ধারাবাহিকতা ভালোবাসি। আমাদের সরকারের ধারাবাহিকতা আছে। সরকারের ধারাবাহিকতা থাকলে সবার উপকার হয়। এতে মধ্যবিত্তের উপহার হয়, উচ্চবিত্তেরও আনুপাতিক হারে উপকার হয়। শুধু আওয়ামী লীগের ধারাবাহিকতার কথা বলছি না, সামাজিক ধারাবাহিকতারও কথা বলছি, আইনের শাসনের ধারাবাহিকতার কথা বলছি।

এনবিআর প্রসঙ্গে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, আমি অর্থ মন্ত্রণালয়ে প্রতিমন্ত্রী হিসেবে কাজ করেছি। সুতরাং, এনবিআরের (জাতীয় রাজস্ব বোর্ড) সঙ্গে কাজ করেছি। এখানে প্রচুর রিফর্ম (সংশোধন) করা দরকার। তবে, বলা সহজ, করা কঠিন।

বাজেটের সমালোচনা করে তিনি বলেন, আমরা দেখছি জেন্ডার বাজেট, শিশু বাজেট ও জেলা বাজেট। এটা কেন করতে হবে? একটাই বাজেট হবে দেশের সব মানুষের জন্য। আমরা উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নিই।

এসব প্রকল্পে নারী ও শিশুর উন্নয়নে নানা খাত থাকে। তাহলে আলাদা বাজেট কেন থাকতে হবে? জেলা বাজেট কী? আমাদের বাজেট কি জেলার বাইরে বাস্তবায়িত হয়? মুহিত সাহেবকে (সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত) বলেছিলাম, স্যার, এগুলো বাদ দেন। এগুলো সংশোধন করা দরকার।

মন্ত্রী বলেন, মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে প্রাইভেট খাত আসছে। বড় সাহেবরা বড় কিছু করতে চাইলে আমরা স্বাগতম জানাবো। বৈষম্য নিয়ে অনেক কথা হয়। আমরা এটা দূর করতে কাজ করছি।