শিরোনাম

ভারতের অগ্নি-৫ ক্ষেপনাস্ত্রের পরীক্ষা সফল

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  |  ১৯:২৫, জানুয়ারি ১৮, ২০১৮

উত্তর কোরিয়ার পরপর ক্ষেপনাস্ত্র পরীক্ষার ফলে বিশ্বে যখন ক্রমশই পরমাণু নিরস্ত্রীকরণে আওয়াজ ওঠছে, তখন সফল পারমাণবিক ক্ষেপনাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়ে আবারও আলোচনায় উঠে এসেছে ভারত।

আজ বৃহস্পতিবার দেশটি অগ্নি-৫ নামের আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপনাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে। এই পরীক্ষার মাধ্যমে দেশটি আরও পারমাণবিক শক্তিধর দেশ হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে যাচ্ছে বলে আন্তর্জাতিক মহল অভিযোগ করছে।

এদিকে অগ্নি-৫ ক্ষেপনাস্ত্রটিকে ভারতের এ যাবৎকালের শক্তিশালী ক্ষেপনাস্ত্র হিসেবে দেখা হচ্ছে। মাত্র ১৯ মিনিটে ক্ষেপনাস্ত্রটি ৪ হাজার ৯০০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করেছে। ধারণা করা হচ্ছে, অগ্নি-৫ ক্ষেপনাস্ত্রটি ৫ হাজার কিলোমিটার দূরে যে কোন লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানতে সক্ষম।

আজ সকাল ৯ টা ৫৪ মিনিটে আবদুল কালাম দ্বীপের লঞ্চপ্যাড-৪ থেকে ক্ষেপনাস্ত্রটির উৎক্ষেপণ করা হয়। ১৯ মিনিটে ক্ষেপনাস্ত্রটি ৪ হাজার ৯০০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করেছে বলে ভারতীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০১২ সালে অগ্নি ৫ ক্ষেপনাস্ত্রের প্রাথমিক পরীক্ষা শেষে ভারত সুপার এক্সক্লিউসিভ ক্লাবে প্রবেশ করে। আর বর্তমান পরীক্ষার মাধ্যমে ভারত নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছে।

ভারত এমন একটি সময় ক্ষেপনাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে যখন পার্শ্ববর্তী দেশ পাকিস্তান ও চীনের সঙ্গে দেশটির উত্তেজনা চলছে। বিশেষ করে দেশটির সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াতের বিরুপ মন্তব্যের কারণে পাকিস্তান ও চীনের সঙ্গে দেশটির কূটনীতিক সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে। এছাড়া কাশ্মীর ইস্যুতে গত কয়েক মাসে পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। অনেকের ধারণা কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে ভারত-পাকিস্তান পারমাণবিক যুদ্ধের দিকে যেতে পারে।

এদিকে পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ চুক্তিতে (এনপিটি) যে দেশগুলো স্বাক্ষর করেনি, তাদের একটি ভারত। এদিকে উত্তর কোরিয়া, ইসরায়েল ও পাকিস্তানও এনপিটি চুক্তিতে স্বাক্ষর করেনি। তাই দেশগুলো পারমাণবিক অস্ত্র মজুদকরণে আগ্রহী হয়ে ওঠেছে। এ তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন উত্তর কোরিয়া ও ভারত।

সুত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত