বিসমিল্লাহ খাঁর চুরি যাওয়া সানাই উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক | ২৩:২২, জানুয়ারি ১০, ২০১৭

  ভারতের কিংবদন্তি সানাইবাদক প্রয়াত ভারতরত্ন ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর চুরি যাওয়া চারটি সানাই উদ্ধার করেছে দেশটির স্পেশাল টাস্ক ফোর্স (এসটিএফ)। এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে বিসমিল্লাহ খাঁর নাতিসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দেশটির বারানসি থেকে চুরি যাওয়া চারটি সানাই উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর নাতি নাজরে হাসান ওরফে শাদাব, গয়না ব্যবসায়ী শঙ্কর লাল শেঠ ও তাঁর ছেলে সুজিত শেঠকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, উদ্ধার হওয়া চারটি সানাইয়ের মধ্যে তিনটি রুপার তৈরি ও একটি কাঠের। পুলিশ জানায়, রুপার তৈরি তিনটি সানাই গলিত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

এসটিএফের জ্যেষ্ঠ এসপি অমিত পাঠক বলেন, ‘ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর নাতি নাজরে হাসান ওরফে শাদাব রুপার তৈরি তিনটি ও একটি কাঠের ফ্রেমের সানাই রুপার গয়না ব্যবসায়ী শঙ্কর লাল শেঠ ও তাঁর ছেলে সুজিত শেঠের কাছে স্রেফ ১৭ হাজার রুপিতে বিক্রি করে দেন। রুপার তৈরি সানাই তিনটি রুপার গয়না ব্যবসায়ীরা গলিয়ে ফেলেছিলেন। উদ্ধার হওয়া গলিত রুপার ওজন এক কিলোগ্রাম। এ ছাড়া একটি কাঠের তৈরি সানাইও উদ্ধার করা হয়েছে।’

প্রতিবেদনে বলা হয়, ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নরসিমা রাও, বিহারের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী লালুপ্রসাদ যাদব ও সাবেক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কপিল শিবাল রুপার তৈরি সানাই তিনটি ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁকে উপহার হিসেবে দিয়েছিলেন। কেবল বিশেষ বিশেষ অনুষ্ঠানেই তিনি রুপার তৈরি তিনটি ও কাঠের তৈরি সানাইটি বাজাতেন।

জ্যেষ্ঠ এসপি অমিত পাঠক আরও বলেন, গত বছরের ৫ ডিসেম্বর প্রয়াত ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর ছেলে কাজিম হুসেইন এ ঘটনায় বারানসির চক থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁর অভিযোগ, বারানসির দলমান্দির বাসা থেকে তাঁর বাবার পাঁচটি সানাই ও কিছু স্মৃতি সংগ্রহ চুরি হয়েছে। ২৯ নভেম্বর থেকে ৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত পরিবারের লোকজন বাসা ছেড়ে শহরে যান। এই সুযোগে চুরির ঘটনা ঘটে।

অমিত পাঠক বলেন, ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর নাতি নাজরে হাসান ওই বাসা থেকে চারটি সানাই চুরি করে গয়না ব্যবসায়ীর কাছে বিক্রি করার কথা স্বীকার করেছেন।

২০০৬ সালে ওস্তাদ বিসমিল্লাহ খাঁর মৃত্যু হয়। এরপর থেকেই তাঁর সানাই ও স্মৃতি সংগ্রহ জাদুঘরে সংরক্ষণের দাবি জানিয়ে আসছেন পরিবারের সদস্যরা।

 

 

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
close-icon