শিরোনাম

এশিয়ায় ৫ ডলারের নিচে এলএনজির দাম

প্রিন্ট সংস্করণ॥অর্থনৈতিক প্রতিবেদক  |  ০১:২২, মার্চ ২৪, ২০১৯

এশিয়ার বাজারে ১৩ সপ্তাহ ধরে এলএনজির দাম কমতির দিকে রয়েছে। এ ধারাবাহিকতায় সর্বশেষ সপ্তাহেও জ্বালানি পণ্যটির দামে মন্দাভাব বজায় ছিল। এ সময় প্রতি মিলিয়ন ব্রিটিশ থার্মাল ইউনিট (২৭ দশমিক শূন্য ৯৬ ঘনমিটার) এলএনজির গড় দাম ৫ ডলারের নিচে নেমে আসে, যা ২০১৬ সালের মে মাসের পর সর্বনিম্ন। চলতি বছরের শুরু থেকে জাপান-চীনসহ শীর্ষ ব্যবহারকারী দেশগুলোয় চাহিদা কাঙ্ক্ষিত হারে না বাড়া জ্বালানি পণ্যটির দরপতনের পেছনে প্রভাবক হিসেবে কাজ করেছে। খবর রয়টার্স ও মার্কেট ওয়াচ। এশিয়ার বাজারে সর্বশেষ সপ্তাহে আগামী মে মাসে সরবরাহের চুক্তিতে প্রতি মিলিয়ন ব্রিটিশ থার্মাল ইউনিট এলএনজির গড় দাম দাঁড়িয়েছে ৪ ডলার ৬৫ সেন্টে, যা আগের সপ্তাহের তুলনায় ৮০ সেন্ট কম। এর মধ্য দিয়ে টানা ১৩ সপ্তাহ ধরে জ্বালানি পণ্যটির দামে মন্দাভাব বজায় থাকল। একই সঙ্গে ২০১৬ সালের মে মাসের পর গত সপ্তাহে এশিয়ার বাজারে জ্বালানি পণ্যটির দাম সর্বনিম্ন অবস্থানে নেমে এসেছে। ওই সময় এশিয়ার বাজারে প্রতি মিলিয়ন ব্রিটিশ থার্মাল ইউনিট এলএনজির গড় দাম ৪ ডলারে নেমে এসেছিল। সর্বশেষ সপ্তাহে জাপান, চীন, দক্ষিণ কোরিয়াসহ শীর্ষ ভোক্তা দেশগুলোয় এলএনজির সরবরাহ না হওয়ায় জ্বালানি পণ্যটির দাম কমে ৫ ডলারের নিচে নেমে এসেছে বলে জানান খাতসংশ্লিষ্টরা। এ সময় পূর্ব এশিয়ার উপকূল থেকে মাত্র দুটি এলএনজিবাহী কার্গো রওনা হয়েছে।
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত