শিরোনাম

বাদামচাষে আগ্রহ বাড়ছে কৃষকদের

প্রিন্ট সংস্করণ॥মহম্মদপুর (মাগুরা) প্রতিনিধি  |  ০১:৫৯, মে ১৬, ২০১৮

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার চরাঞ্চলে বাদামের বাম্পার ফলনের আশা করছেন কৃষক। লাভজনক ফলনের আশায় ক্ষেত পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছে বাদাম চাষিরা।
অল্প খরচে বেশী লাভবান হওয়ায় বাদামচাষের প্রতি ঝুঁকে পড়ছে মধুমতি নদী পাড়ের চরাঞ্চলের কৃষকরা। উপজেলা কৃষি অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, মধুমতি নদীপাড়ের ঝামা, চরঝামা, রায়পাশা, ঢুশরাইল, জাঙ্গালিয়া, চরজাঙ্গালিয়া ও বাবুখালিসহ চরাঞ্চলের কয়েক গ্রামে এ বছর ৩৫ হেক্টর জমিতে বাদাম চাষ হয়েছে। যা গত বছর হয়েছিল ৫০ হেক্টর জমিতে। আর উৎপাদন হয়েছিল ৭৫ মেট্রিক টন। গত বছরের তুলনায় চলতি বছরে কম জমিতে বাদাম চাষ হলেও আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে বাদামের বাম্পার ফলনের আশা করছেন চরাঞ্চলের বাদাম চাষিরা ও উপজেলা কৃষি বিভাগ।
উপজেলার জাঙ্গালিয়া গ্রামের বাদাম চাষি সাইফুল ইসলাম, চর ঝামা গ্রামের আছাদুজ্জামান ও মারুফ হোসেনের সাথে কথা বলে জানা যায়, বাদাম লাগানোর ৯০ দিনের মধ্যে তা তুলা শুরু হয়। বাদাম চাষে খরচ ও সময় দুটোই কম লাগে। এতে লাভের পরিমান ভালো হওয়ায় দিন দিন বাদাম চাষে আগ্রহ বাড়ছে আমাদের চরাঞ্চলের কৃষকদের। আবহাওয়া ভালো থাকলে প্রতি বিঘায় ১২ থেকে ১৬ মণ বাদাম উৎপাদন করে ঘরে তুলতে পারবে বলে তারা আশা করছেন। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আতিকুল ইসলাম জানান, কৃষি বিভাগের সকল কর্মকর্তা কর্মচারী কৃষকদের সাথে মতবিনিময় ও উঠান বৈঠকের মাধ্যমে পরামর্শ দিয়ে চলেছেন প্রতিনিয়ত। এতে উদ্বুদ্ধ হয়ে বাদামচাষে আগ্রহ বাড়ার পাশাপাশি বাদামচাষে লাভবান হওয়ার আশা করছে কৃষকরা।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত